ভাই, অনেক কষ্ট করছি: মোস্তাফিজ

অনুশীলন শেষে বিসিবি একাডেমি ভবনে ব্যাকপ্যাক রেখে হাফ ছেড়ে বসলেন জাতীয় দলের বাহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমান। বসেই বললেন, ‘ভাই, অনেক কষ্ট করছি।’ প্রচণ্ড তাপদাহ, গরম। জীবন যাপনে হাসফাস অবস্থা। একটু এদিক সেদিক হলে অসুস্থ হয়ে যাওয়াটাই স্বাভাবিক। এরই মধ্যে শুরু হয়েছে জাতীয় দলের বিশ্বকাপ প্রস্তুতি। আজ মঙ্গলবারসহ দুদিন অনুশীলন হয়েছে। অবশ্য অনুশীলনে ট্রাইনেশন সিরিজের জন্য ঘোষিত স্কোয়াডের সবাই আসছেন না। প্রিমিয়ার লিগে যাদের দল এখনো টিকে আছে তারা ব্যস্ত লিগ নিয়ে। সাকিব ব্যস্ত আইপএলে। অন্যদিকে মোস্তাফিজ অনুশীলন করতে গিয়ে পাওয়া ইনজুরির কারণে আছেন বিশ্রামে।

বিশ্রামটাও অবশ্য এখন খাতা-কলমে হয়ে গেছে। মোস্তাফিজ যে ঘাম ঝরাচ্ছেন নিয়মিত। আজ অনুশীলন শেষ করে এসেই- ‘ভাই অনেক কষ্ট করছি।’ তো কী কী অনুশীলন করলেন এমন প্রশ্নে স্বল্পভাষী মোস্তাফিজ অল্প কথায় উত্তর দিলেন, ‘জিম করছি, আর ব্যাটিং করছি।’ বোলিং কবে থেকে শুরু করবেন জানতে চাইলে মোস্তাফিজ বলে দিলেন, ‘ফিজিও জানে।’ তবে এটা নিশ্চিত করলেন তিনি এখন ভালোর দিকে আছেন। খুব অল্প সময়ের মধ্যেই শুরু করবেন বোলিং। ইনজুরির অবস্থা বলতে গিয়ে, কাটার মাস্টার হাসিভরা মুখে বলেন, ‘লাইনে আছে ভাই।’

গতকাল থেকে শুরু হয়েছে জাতীয় দলের অনুশীলন। চলবে ২৯ এপ্রিল পর্যন্ত। ট্রাইনেশন সিরিজ খেলতে আয়ারল্যান্ডের উদ্দেশে বাংলাদেশ দল ঢাকা ত্যাগ করবে ১ মে। সাত মে ট্রাই নেশন সিরিজের প্রথম ম্যাচে খেলতে নামবেন টাইগাররা। মোস্তাফিজ এর আগেই সম্পূর্ণ ফিট হয়ে যাবেন বলে আশা করছেন সবাই। মোস্তাফিজকে নিয়ে বোলিং কোচের একটা কথা দিয়ে শেষ করি। উইন্ডিজ কিংবদন্তি কোর্টনি ওয়ালশ বলেন, ‘পুরোপুরি ফিট মোস্তাফিজ তোমাকে ম্যাচ জেতাবে, তবে আমাদের তাকে সম্ভাব্য ফিট রাখতে হবে। আমাদের হাতে এখনও সময় আছে। আমি আশা করি, তাকে খুব বেশি পরিশ্রম করাবো না।’

পাঠকের মতামত