শ্রীলঙ্কা হামলায় ছেলেদের উৎসাহ দিয়েছিল তাদের বাবা

শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ সিরিজ বোমা হামলায় সন্দেহভাজন দুই হামলাকারী ছেলেকে তাদের বাবা সাহায্য ও উৎসাহ দিয়েছিল বলে ধারণা করছে দেশটির পুলিশ। এদিকে ইস্টার সানডেতে আত্মঘাতী হামলায় ৩৫৯ জন নিহতের ঘটনায় দেশজুড়ে আন্তর্জাতিক তদন্ত চলছে। সিএনএন-এর প্রতিবেদনে বলা হয়, গত রবিবারের এ হামলার ঘটনায় মসলা ব্যবসায়ী মোহাম্মদ ইউসুফ ইব্রাহিম নামে এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়। তার দুই ছেলে ইমসাত আহমেদ ইব্রাহিম ও ইলহাম আহমেদ ইব্রাহিম এ হামলায় আত্মঘাতী হয়েছেন।

আজ বৃহস্পতিবার পুলিশের মুখপাত্র রুয়ান গুনাসিকারা সিএনএন-কে জানিয়েছেন, হামলায় ছেলেদের সাহায্য এবং উৎসাহ দেওয়ায় তাদের বাবা মোহাম্মদ ইউসুফ ইব্রাহিমকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে। সেইসঙ্গে ওই পরিবারের সকল সদস্যকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে বলেও জানান তিনি। পুলিশের ওই মুখপাত্র সিএনএনকে আরও জানান, দেশজুড়ে বোমা হামলার সঙ্গে পাঁচটি পরিবারের সংযোগ খুঁজে পেয়েছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি) ও সন্ত্রাস তদন্ত বিভাগের (টিআইডি) কর্মকর্তারা। এর আগে ওই স্থানগুলো ফরেনসিক তদন্তে চিহ্নিত করা হয়।

নাসিকারা আরও জানান, জঙ্গি, জঙ্গিবাদকে সহায়তা ও জঙ্গিবাদে ষড়যন্ত্রের সন্দেহে ৭০ জনকে আটক করা হয়েছে। তাদের মধ্যে চারজন উচ্চমাপের সন্দেহভাজনকে চিহ্নিত করছে টিআইডি ও ৩৩ জনকে সিআইডি। আটককৃতদের মধ্যে চারজন নারী এবং তারা সবাই মুসলিম। অধিকাংশই সন্দেহভাজন বোমা হামলাকারীদের পরিবারের সদস্য এবং বন্ধু। আটককৃতদের কেউ বিদেশি নয় বলেও জানান তিনি। এদিকে শ্রীলঙ্কায় বিশাল আন্তর্জাতিক অপরাধ তদন্ত চলছে। যেখানে যুক্তরাজ্যের স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড এবং যুক্তরাষ্ট্রের এফবিআইসহ ছয়টি বিদেশি পুলিশ সংস্থা এবং ইন্টারপোল স্থানীয় পুলিশকে সাহায্য করছে।

পাঠকের মতামত