বিদেশগামী বড় ভাইকে বিদায় জানাতে এসে লাশ হলেন ছোট ভাই

বিদেশগামী বড় ভাইকে বিদায় জানাতে নরসিংদী থেকে ঢাকায় এসে লাশ হলেন ছোট ভাই ও তাদের ভগ্নিপতি। রোববার (২৭ জানুয়ারি) মাঝরাতে রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে ট্রাক চাপায় নিহত হন তারা। এ ঘটনার পর ঘাতক ট্রাকটি ফুটপাতে উঠে যায়। এরইমধ্যে ট্রাকের চালক ও সহকারীকে আটক করেছে পুলিশ। তারা জানান, রাতেই আরেকটি দুর্ঘটনার পর দ্রুতগতিতে পালাতে গিয়ে ট্রাকটি দু’জনকে চাপা দেয়।

সৌদি আরবগামী বড় ভাই রুবেলকে এগিয়ে দেয়ার জন্য নরসিংদী থেকে রোববার বিমানবন্দর এলাকায় একটি হোটেলে ওঠেন ছোট ভাই ডালিম ও তাদের ভগ্নিপতি মোবারক। সোমবার (২৮ জানুয়ারি) দুপুরে রুবেলের ফ্লাইট; তাই তাকে হোটেলে বিশ্রামে রেখে বিমানবন্দর এলাকা ঘুরে দেখতে বের হন ডালিম ও মোবারক। বিমানবন্দরের প্রবেশ মুখে ঘাতক ট্রাক কেড়ে নিয়েছে তাদের জীবন। খবর পেয়ে হোটেল থেকে বিমানবন্দর থানায় এসে কান্নায় ভেঙে পড়েন রুবেল। মা আর সদ্য বিবাহিত বোনকে কী জবাব দেবেন তা ভেবে বাকরুদ্ধ তিনি।

বড় ভাই রুবেল বলেন, ‘সৌদি আরব যাওয়ার জন্য আমি এসেছিলাম সাথে আমার বোন জামাই ছিলো। আমারে রুমে শুইয়ে রেখে ওরা বাইরে ঘুরতে গেছিলো। আমার কাল ফ্লাইট। আমি কাল কীভাবে বিমানে উঠবো।’

পুলিশ জানায়, ট্রাকটি অন্য একটি গাড়িকে ধাক্কা দেয়ার পর দ্রুত পালাতে গিয়ে বিমানবন্দরের প্রবেশ মুখে দুই জনকে চাপা দেয়। ফুটপাতে আটকে না গেলে আরও ভয়াবহ ঘটনা ঘটতে পারতো বলেও জানায় পুলিশ।

বিমানবন্দর আর্মড পুলিশ ব্যাটলিয়ান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন বলেন, ‘রাত ১২.৩০ এর দিকে বিমানবন্দরের সংযোগস্থলে একটি মাইক্রোবাসকে প্রথম ট্রাকটি আঘাত করে। পালাতে গিয়ে বামদিকে ট্রাকটি ঢুকিয়ে দেয়। আসার সময় দুইজন পথচারীকে চাপা দেয়।’ এ ঘটনায় ঘাতক ট্রাকটির চালক ও হেলপারকে আটক করেছে বিমানবন্দর থানা পুলিশ।

পাঠকের মতামত